আনিছুর রহমানের কবিতা


প্রতীক্ষার সুখ

জানি আসবেনা
তবু ও প্রতীক্ষা তোমার-
নিয়ত হৃদয়ে সাজাই প্রতীক্ষিত সুখ,
তৃষিত চাতকীর প্রতীক্ষা-
অমানিশা কেটে গেলে দেখিবে সে প্রেয়সীর মুখ l
শিশির সিক্ত রাতের হাওয়ায় জোৎস্না মেশানো স্নিগ্দতায় হৃদয়ে কুড়িয়ে নেই প্রশান্তির ছায়া,
পত্রচ্যুত বৃক্ষের স্বপ্ন মনে একদিন অরণ্য মর্মরে ফিরে পাবে বৃন্তে বৃন্তে সুশোভিত সবুজের মায়া l
মায়ায় সম্মোহিত পৃথিবী
সম্মোহনে হৃদয়ে হৃদয় মেশে
অলেপনীয় কালিতে হৃদয় জাগানিয়া নাম হয়ে যায় লেখা,
সেই থেকে হৃদয়ে নৈস্বর্গিক আবেশ
সেই থেকে শুরু অপেক্ষা, প্রতীক্ষা,
সেই থেকে ভালোবাসা শেখা l
কেউ দূরে চলে গেলে সময়ের জটিল স্রোত বাড়ায় ব্যবধান,
দূরে যাওয়া মানে দূরে যাওয়া নয়
তার তরে বেড়ে যায় হৃদয়ের টান l
একি মায়া ! সহস্র আলোকবর্ষ দূরে চাঁদ- তবু প্রেমাশ্রু ঢেলে বাঁচিয়ে রাখে চাতকের প্রাণ,
পৃথিবীর ঘূর্ণিপথে চলতে চলতে
যদিবা কখনো হয়ে যায় দেখা,
হয়তো তখন রেখে নয়নে নয়ন পড়ে নেব পুনঃ সেই আস্বস্তের লেখা l
এইসব কল্পকথা হৃদয়ে পরতে পরতে বয়ে আনে কল্পিত সুখ,
হয়তো আসবেনা তুমি- তবু তোমার প্রতীক্ষায় হৃদয় উন্মুখ l

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *