অবশেষে আটকে থাকা পাসপোর্টগুলো পাচ্ছে স্পেন প্রবাসীরা

স্পেন প্রতিনিধি :

প্রায় এক বছর আটকে থাকা পাসপোর্ট অবশেষে হাতে পাচ্ছে স্পেন প্রবাসী বাংলাদেশিরা। ফলে এ নিয়ে স্পেন প্রবাসীদের সকল অভিযোগের অবসান হচ্ছে।

স্পেনে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত হাসান মাহমুদ খন্দকারের নিরলস প্রচেষ্টায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. আব্দুল মোমিনিনের সরাসরি হস্তক্ষেপ, পাসপোর্ট অধিদপ্তরের নতুন ডিজি মেজর জেনারেল আইয়ুব আলীর সার্বিক তদারকিতে প্রবাসীদের পাসপোর্টগুলো বুধবার (১১ নভেম্বর) মাদ্রিদ দূতাবাসে পৌঁছেছে। এখন প্রবাসীদের কাছে বিতরণের প্রস্তুতি নিচ্ছে মাদ্রিদ দূতাবাস।

দীর্ঘদিন ধরে পাসপোর্ট না পাওয়ায় স্প্যানিশ রেসিডেন্স কার্ড এর এপলাই, নবায়নে চরম ভুগান্তিতে পরে অনেক স্পেন প্রবাসী বাংলাদেশি। এতে করে অনেকের অবৈধ হয়ে যাওয়ার অসংখ্যা ও ছিল। এ নিয়ে ভুক্তভোগীরা গত এক বছর ধরে দূতাবাস, প্রবাসী কল্যাণ ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আবেদন জানিয়ে আসছিলেন।

বাংলাদেশ দূতাবাস স্পেনে নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত হাসান মাহমুদ খন্দকার বর্ণিত বিষয়ে পাসপোর্ট অধিদপ্তর বরাবর একাধিক চিঠি দিয়ে কোনো অগ্রগতি না হওয়ায় পরবর্তীতে তিনি পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে জানান। পরে বহিঃগমন ও পাসপোর্ট অধিদপ্তরের মহাপরিচালককে বিষয়টি অবহিত করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রীর একান্ত সচিব ড.দেওয়ান মো. শাহরিয়ার ফিরোজ।

পাসপোর্টগুলো বাংলাদেশ থেকে স্পেনের মাদ্রিদে বাংলাদেশ দূতাবাসে পৌঁছার খবর শুনে প্রবাসীরা আনন্দিত। তারা পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও রাষ্ট্রদূতকে ধন্যবাদ জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *