কুষ্টিয়ায় সাংবাদিক নির্যাতনে ছাত্রলীগ নেতা গ্রেফতার

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি | ১৫ ডিসেম্বর, ২০২০, ২০:২৭ |

কুষ্টিয়ায় সাংবাদিক নির্যাতন মামলায় কুষ্টিয়া জেলা ছাত্রলীগের সদ্য বিলুপ্ত কমিটির সাধারণ সম্পাদক পলাতক সাদ আহমেদকে গ্রেফতার করেছে গোয়েন্দা পুলিশ। মঙ্গলবার ভোরে চুয়াডাঙ্গা জেলার আলমডাঙ্গা উপজেলার বাবুপাড়ায় অভিযান চালিয়ে শিক্ষক আবু তালেব রওশনের বাড়ি থেকে পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে।

পুলিশ জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়ে সাংবাদিক নির্যাতন মামলার আসামি ছাত্রলীগ নেতা সাদ আহম্মদকে কুষ্টিয়া ডিবি ও আলমডাঙ্গা পুলিশের যৌথ অভিযানে গ্রেফতার করা হয়। গত ৪ ডিসেম্বর রাতের অন্ধকারে কুষ্টিয়ায় নির্মাণাধীন বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাংচুর ঘটনার পর প্রতিবাদে ফেটে পড়ে শহরবাসী। ঘটনার প্রতিবাদে বিক্ষোভ-সমাবেশে উত্তাল হয়ে উঠে পুরো শহর। দিনভর এসব কর্মসূচি পালন শেষে গত ৫ ডিসেম্বর রাতে দুর্বৃত্তরা শহরে ত্রাস সৃষ্টি ও তান্ডব চালায়।পরবর্তীতে রাত ৯ টার দিকে দুর্বৃত্তরা শহরের প্রবেশমুখ মজমপুর গেট চত্বরে অবস্থিত কুষ্টিয়া-ঢাকা এসবি পরিবহনের টিকিট কাউন্টারে হামলা ও ব্যাপক ভাংচুর করে।

এরপর সন্ধ্যায় শহরের লোকালয়ে অবস্থিত জেলা বিএনপির অফিসে ভাংচুর চালায়। এসব ঘটনার ফুৃটেজ ধারণ করার সময় দীপ্ত টিভির কুষ্টিয়া প্রতিনিধি দেবেশ চন্দ্র সরকার ও ক্যামেরা পারসন হারুনকে নির্দয়ভাবে পিটিয়ে আহত করা হয়। ঘটনার পর ওই দুর্বৃত্তরা নির্বিঘ্নে পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে গুরুতর আহত ওই সাংবাদিককে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া ২৫০ বেড জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ ঘটনার প্রতিবাদে স্থানীয় সাংবাদিকরা মানববন্ধন, বিক্ষোভ প্রদর্শনসহ নানা কর্মসূচি পালন করেন।

এ ঘটনায় গত ৬ ডিসেম্বর জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সাদ আহম্মেদকে প্রধান আসামিকে করে দীপ্ত টিভির প্রতিনিধি দেবেশ চন্দ্র কুষ্টিয়া মডেল থানায় মামলা করেন। মামলার পর ছাত্রলীগের ওই নেতা আত্মগোপন করেছিলেন। সাংবাদিক নির্যাতন ছাড়াও তার বিরুদ্ধে জমি জালিয়াতির অভিযোগও রয়েছে।

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালের ১৪ নভেম্বর গঠিত কুষ্টিয়া জেলা ছাত্রলীগের গঠিত কমিটি কেন্দ্রীয় নির্দেশে চলতি বছরের ১৬ সেপ্টেম্বর কমিটি বিলুপ্ত করা হয়। কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার এসএম তানভীর আরাফাত সত্যতা স্বীকার করে জানান, সাংবাদিক নির্যাতন ঘটনায় দায়েরকৃত মামলায় আসামি সাদ আহম্মদকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *