নাইজেরিয়ায় ৩৪৪ স্কুলছাত্রের মুক্তি


মহাকাল ডেস্ক | ১৮ ডিসেম্বর ২০২০, ০১:২৫ |

নাইজেরিয়ার উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের কাটসিনা অঙ্গরাজ্যের কানকারার একটি সরকারি বিজ্ঞান স্কুলে হামলা চালিয়ে অপহরণ করা ৩৪৪ জন ছাত্রকে এক সপ্তাহ পর মুক্তি দিয়েছে ইসলামিক জঙ্গিগোষ্ঠী বোকো হারাম। তারা সবাই সুস্থ রয়েছে।

কাটসিনা অঙ্গরাজ্যের গভর্নরের মুখপাত্র বিবিসিকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। মুখপাত্র আবদুল লাবরান জানান, ওই স্কুলছাত্রদের দেশটির আঞ্চলিক রাজধানী ক্যাটসিনা সিটিতে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে এবং খুব শিগগিরই তাদের পরিবারের কাছে ফিরিয়ে দেয়া হবে। তবে কোন প্রক্রিয়া বা বিনিময়ের মাধ্যমে তাদের মুক্ত করা হয়েছে তা নিশ্চিত করা হয়নি।

এদিকে স্কুলছাত্রদের মুক্তি দেয়ার প্রায় এক ঘণ্টা আগেই জঙ্গিগোষ্ঠী বোকো হারাম একটি ভিডিও প্রকাশ করে। ভিডিওতে কিছু স্কুলছাত্রকে দেখানো হয় এবং উল্লেখ করা হয়, নাইজেরিয়ার বিমান বাহিনীর হামলায় কেউ কেউ মারা গেছেন।

বোকো হারামের ভিডিও বার্তাটি সঠিক বলে স্বীকার করেছেন গভর্নরের মুখপাত্র আবদুল লাবরান। তবে বিমান বাহিনীর হামলায় কেউ নিহত হয়নি দাবি করে তিনি বলেছেন, ভিডিওটি অপহৃত ছাত্রদের এটা সঠিক। তবে ভিডিও বার্তায় জঙ্গি নেতা আবু বাকার শেকাউ পরিচয়ে হাজির হওয়া ব্যক্তির আসল পরিচয় নিয়ে সংশয় রয়েছে।

অপরদিকে ঘটনার পর থেকে অপহৃত ছাত্রের সংখ্যা কম বলে আসছিল কর্তৃপক্ষ। মুক্তির পর সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় এ নিয়ে আরও সন্দেহ-সংশয়ের সৃষ্টি হয়েছে।

স্থানীয় নিরাপত্তা কর্মীদের সূত্রে বার্তা সংস্থা এএফপি তাদের প্রতিবেদনে জানিয়েছে, এখনও কিছুসংখ্যক স্কুলছাত্র জঙ্গিগোষ্ঠীর হাতে বন্দি রয়েছে।

কাটসিনার গভর্নর আমিনু বেলো মাসারিও বিষয়টি স্বীকার করেছেন। তিনি রয়টার্সকে বলেন, ‘আমরা বেশিরভাগ ছাত্রকে উদ্ধার করেছি। তবে সবাইকে এখনও মুক্ত করা যায়নি।’

গত শুক্রবার বন্দুকধারীদের একটি দল কানকারার ওই স্কুলে হামলা চালায়। অপহরণ থেকে রক্ষা পাওয়া শিক্ষার্থীদের ভাষ্য অনুযায়ী- হামলাকারীদের কাছে একে-৪৭ রাইফেল ছিল। তারা স্কুলে ঢুকে গুলি ছুঁড়তে শুরু করে। অস্ত্রের মুখে ছাত্রদের জড়ো করার পর সবাইকে হাঁটিয়ে নিয়ে চলে যায়। তবে কিছু শিক্ষার্থী পালিয়ে আশেপাশের জঙ্গলে অবস্থান নেয়।

ঘটনার পর বোকো হারামের নেতা পরিচয়ে আবু বাকার শেকাউ পরিচয়ে অডিও বার্তা পাঠানো হয়। বার্তায় বলা হয়, ‘আমি আবু বাকার শেকাউ এবং কাটসিনার অপহরণের পেছনে রয়েছে আমাদের ভাইয়েরা।’

এরপর শিক্ষার্থীদের উদ্ধারে গত শনিবার নাইজেরিয়ার পুলিশ, এয়ারফোর্স ও সামরিক বাহিনী যৌথ অভিযান শুরু করে। গত সোমবার দেশটির সামরিক বাহিনী জানিয়েছিল, তারা অপহরণকারীদের গোপন আশ্রয়ের খোঁজ পেয়েছে।

ইসলামিক স্টেট ইন ওয়েস্ট আফ্রিকা প্রভিন্স (ইসওয়াপ) বা বোকো হারাম নামে পরিচিত জঙ্গী গোষ্ঠীটি গত কয়েক বছর ধরে নাইজেরিয়ার উত্তরপূর্ব অঞ্চলসহ প্রতিবেশি ক্যামেরন, চাদ ও নাইজারে সন্ত্রাসী কার্যক্রম চালিয়ে আসছে। বোকো হারাম ২০১৪ সালে চিবক শহরের একটি বালিকা স্কুল থেকে কয়েকশ ছাত্রীকে অপহরণ করেছিল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *